সীমান্তে মিয়ানমারের সেনাসমাবেশ

19

বাংলাদেশ-মিয়ানমার আন্তর্জাতিক সীমান্তে গত শুক্রবার ভোর থেকে মিয়ানমারের সেনাদের সন্দেহজনক উপস্থিতি লক্ষ্য করেছে বাংলাদেশ। এভাবে সীমান্তের কাছে বিনা উসকানিতে সেনাসমাবেশের প্রতিবাদে ঢাকায় মিয়ানমারের রাষ্ট্রদূত অং কিউ মোয়েকে রোববার পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মিয়ানমার সেলের মহাপরিচালক মো. দেলোয়ার হোসেনের দপ্তরে তলব করা হয়। সন্দেহজনক এসব তৎপরতা বন্ধ করতে মিয়ানমারকে দ্রুত পদক্ষেপ নিতে বলেছে বাংলাদেশ।

২০১৭ সালের আগস্টে রাখাইনে গণহত্যা শুরুর প্রথমদিকে এভাবেই মিয়ানমারের সেনাদের দেখা গিয়েছিল। জানা গেছে, শুক্রবার ভোরে দুই দেশের আন্তর্জাতিক সীমান্তের তিনটি পয়েন্ট কা নিউন ছুয়াং, মিন গা লার গি ও গার খু ইয়া এলাকায় মাছ ধরার ট্রলারে লুকিয়ে সৈন্য এনে জড়ো করা হয়েছে। ওই দিনেই অন্তত এক হাজারের বেশি মিয়ানমারের সেনা আনা হয়েছে বলে ধারণা করা হচ্ছে।

এভাবে সৈন্য নিয়ে আসার সম্ভাব্য অন্যতম কারণ হল, ২০১৭ সালের আগস্টের রোহিঙ্গা গণহত্যায় যুক্ত মিয়ানমার সেনাদের দ্রুত সীমান্ত থেকে সরিয়ে নেওয়া। আন্তর্জাতিক অপরাধ আদালতে দুই সৈন্যের জবানবন্দি রেকর্ডের পর থেকে পুরোনো সেনাদের নিয়ে মিয়ানমার সরকারের এমন তৎপরতা।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে