বন্ধ হবে সীমান্ত হত্যা

25

সীমান্ত হত্যা শূন্যের কোটায় নামিয়ে আনতে বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি) মহাপরিচালক ও ভারতীয় সীমান্তরক্ষী বাহিনী বর্ডার সিকিউরিটি ফোর্স (বিএসএফ) এর মহাপরিচালক একমত পোষণ করেছেন। ৪ দিনব্যাপী বিজিবি ও বিএসএফ ডিজি পর্যায়ের সম্মেলন শেষে ঢাকার পিলখানায় বিজিবি’র সদর দপ্তরে আয়োজিত সংবাদত সম্মেলনে বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি) মহাপরিচালক মেজর জেনারেল মো. সাফিনুল ইসলাম ও ভারতীয় সীমান্তরক্ষী বাহিনী বর্ডার সিকিউরিটি ফোর্স (বিএসএফ) এর মহাপরিচালক রাকেশ আস্থানা সীমান্ত হত্যা শূন্যের কোটায় নামিয়ে আনতে প্রতিজ্ঞাবদ্ধ বলে সাংবাদিকদের জানিয়েছেন।

বাংলাদেশ-ভারত সীমান্তে উভয় দেশের নিরস্ত্র নাগরিকদের হত্যা বা আহত অথবা মারধরের ঘটনা শূন্যের ঘরে নামিয়ে আনার জন্য ঝুঁকিপূর্ণ সীমান্তবর্তী এলাকায় যৌথ টহল বৃদ্ধি, জনসচেতনতামূলক কর্মসূচী আরও বেগবান করা এবং প্রয়োজনঅনুযায়ী আর্থ-সামাজিক উন্নয়নমূলক কর্মসূচি গ্রহণসহ সীমান্তে অতিরিক্ত সতর্কতামূলক ব্যবস্থা গ্রহণে দুই বাহিনীর প্রধান রাজি হয়েছেন। দুই দেশের সীমান্তে মাদক ও অস্ত্র চোরাচালান এবং মানব পাচার বন্ধ করতে উভয় বাহিনীর প্রধান এক সঙ্গে কাজ করার আগ্রহ প্রকাশ করেছেন।

পিলখানা বিজিবি সদর দপ্তরের সম্মেলন কক্ষে ৪ দিনব্যাপী সম্মেলনের আনুষ্ঠানিক বৈঠক বৃহস্পতিবার (১৭ সেপ্টেম্বর) সকাল ১০ টা ৪৫ মিনিটে শুরু হয়। শনিবার সকাল ১০টার দিকে দিকে সম্মেলনের যৌথ আলোচনার দলিল স্বাক্ষরের মধ্য দিয়ে সীমান্ত সম্মেলন শেষ হয়।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে